ই-পেপার | বুধবার , ১৭ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

পটুয়াখালীতে গ্রাহকদের টাকা ‘আত্মসাৎ’, এনজিও কর্মকর্তা গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক:

পটুয়াখালী: পটুয়াখালীতে গ্রাহকদের ঋণ দেওয়ার কথা বলে সাড়ে ১২ লাখ টাকা হাতিয়ে বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা রিসোর্স ইন্টিগ্রেশন সেন্টারের (রিক) পা‌লিয়ে যাওয়া ক্রেডিট অফিসার কাওসার আলীসহ দুজনকে আটক করেছে পুলিশ

 

শুক্রবার (২২ মার্চ) দুপুরে পটুয়াখালী সদর থানায় আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে ওসি মো. জসিম এ তথ্য জানান।এদিকে কাওসার আলীর গ্রেপ্তারের খবরে থানায় ছুটে আসেন প্রতারিত মানুষেরা।

 

এ সময় তারা তাদের অর্থ উদ্ধারের পাশাপাশি প্রতারকের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানান।ওসি মো. জসিম বলেন, গত ৮ মার্চ রিসোর্স ইন্টিগ্রেশন সেন্টার (রিক) নামে এই প্রতিষ্ঠানের বার্ষিক বনভোজন ছিল। এ সময় শারীরিক অসুস্থতার অজুহাতে ক্রেডিট অফিসার কাওসার আলী কুয়াকাটা না গিয়ে অফিস কার্যালয়ে অবস্থান করেন। পরে তিনি ১৩টি সমিতির ৮৩ জন সদস্যদের ঋণ আবেদনের গচ্ছিত জামানতের সাড়ে ১২ লাখ টাকা ও একটি হিরো ব্রান্ডের মোটরসাইকেল নিয়ে পালিয়ে যান।

 

এ ঘটনা জানাজানি হলে সংস্থাটির সদস্যরা অফিসের সামনে এসে হট্টগোল করেন। নিজেদের আমানত হারিয়ে দিশেহারা হয়ে পরেন খেটে খাওয়া মানুষ।

 

পরে অভিযুক্ত ক্রেডিট অফিসার কাওসার আলীর অফিসিয়াল জামিনদার আশরাফুল ইসলামের যোগাযোগ করলে, তিনি চুরির ঘটনা স্বীকার করে টাকা ও মোটরসাইকেল ফেরত দেওয়ার কথা জানান। তবে কয়দিন পর উভয় আত্মগোপনে চলে যায়। পরে গত ১৭ মার্চ উক্ত ঘটনায় সদর থানায় দুজনকে আসামি করে রিকের শাখা ব্যবস্থাপক মিরাজ শেখ বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন।

 

মামলার প্রেক্ষিতে পুলিশ তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তা নিয়ে ও নওগাঁ পুলিশের সহযোগিতায় সাপাহার থানার এরেন্দা এলাকা থেকে মূল আসামি কাওসার আলীকে আটক করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে বলে জানান ওসি মো. জসীম।